আশা ছেড়ে দিয়েছেন বার্সেলোনা কোচ চ্যাম্পিয়নস লিগ জেতার

|

সেই কবে, ২০১৫ সালে চ্যাম্পিয়নস লিগ জিতেছে বার্সেলোনা। তর্কসাপেক্ষে এই শতাব্দীর সেরা আক্রমণের ত্রয়ী মেসি-নেইমার-সুয়ারেজকে নিয়ে সেই যে ইউরোপ শাসন করে সম্ভাব্য সবকিছু জিতে ফিরেছিল। এরপর থেকেই ইউরোপে মাথা কুটে মরছে দলটি। সর্বোচ্চ সেমিফাইনাল পর্যন্ত পৌঁছেই থেমেছে দৌড়।

ছয় বছর হয়ে গেছে, চ্যাম্পিয়নস লিগে শিরোপার দেখা পাচ্ছে না বার্সেলোনা। আগামীকাল নতুন মৌসুমে চ্যাম্পিয়নস লিগ শুরু করতে যাচ্ছে বার্সা। বায়ার্ন মিউনিখের বিপক্ষে ম্যাচের আগে আশার কথাই শুনিয়েছেন দলটির অধিনায়ক সের্হিও বুসকেতস। কিন্তু অধিনায়কের সঙ্গে মত মিলছে না কোচের। কারণ, রোনাল্ড কোমানের ধারণা, অন্তত আরও দুই বছর চ্যাম্পিয়নস লিগ জেতার সম্ভাবনা নেই বার্সেলোনার।

স্পেনে মাঝে একতরফা দাপট ছিল বার্সেলোনার। কিন্তু ইউরোপে সেটা দেখিয়েছে রিয়াল মাদ্রিদ। ইউরোপেও প্রতিদ্বন্দ্বীদের মতো দাপট দেখানোর আশায় দুর্দান্ত এক দল গড়েছিল বার্সা। ২০১৫ সালে ‘এমএসএন’ ত্রিফলার প্রথম বছরেই সব জিতে নেওয়ার পর তেমন কিছু হবে বলেই মনে হচ্ছিল। সেটা হয়নি। এরপর তো বার্সেলোনা ভাঙা হাটই হয়ে গেল। প্রথমে চলে গেলেন নেইমার। ইনিয়েস্তা ইউরোপ ছাড়লেন। এরপর অধিনায়কের দায়িত্ব পেয়ে লিওনেল মেসি চ্যাম্পিয়নস লিগ ফেরানোর জন্য সর্বোচ্চ চেষ্টা করবেন বলে জানিয়েছিলেন।

মেসির সে চেষ্টায় লাভ হয়নি। একের পর এক মৌসুমে ব্যর্থ হওয়া বার্সেলোনা এরপর ছেড়েছে ত্রিফলার দ্বিতীয়জন লুইস সুয়ারেজকে। উরুগুয়ে তারকার পথ ধরে এবার তো মেসি নিজেও বিদায় নিলেন। বার্সেলোনা সমর্থকেরা তাই এমনিতেই হতাশায় দিন কাটাচ্ছেন। এর মধ্যে কোচ কোমানও যেন প্রতিজ্ঞা করেছেন, রূঢ় বাস্তবতার সঙ্গে পরিচয় করিয়ে দেবেন সবার।

আজ চ্যাম্পিয়নস লিগে ম্যাচপূর্ব সংবাদ সম্মেলনে প্রতিপক্ষ নিয়ে কথা বলেছেন কোমান। আর এর আগেই গতকাল নেদারল্যান্ডসের সংবাদমাধ্যম এনওএসের কাছে নির্মম বাস্তবতার কথা জানিয়েছেন তিনি, ‘ম্যানচেস্টার সিটি ও চেলসির মতো দলগুলোর সঙ্গে লড়াই করার মতো অবস্থায় যেতে আরও দুই বছর লাগবে আমাদের। এটা স্বীকার করে নেওয়াই ভালো, যা করা উচিত, সেসব কিছু আমাদের পক্ষে আর করা সম্ভব নয়।’

অর্থাৎ বার্সেলোনার সমর্থকেরা যেমনটা সব সময় আশা করেন, একের পর এক ট্রফিতে ভরে উঠবে ক্লাবের শোকেস, সেই সব দিনের কথা একটু ভুলে থাকতে বলেছেন কোমান, ‘খেলার দিক থেকে, এই ক্লাব সব সময়ই ভালো থাকবে। প্রশ্ন হলো, আমরা কি চ্যাম্পিয়নস লিগে জেতার মতো এবং টানা কয়েক বছর স্পেনে দাপট দেখানোর সময়টায় ফিরতে পারব? এই মুহূর্তে সেটা সম্ভব নয়।’








Leave a reply